الانشاء : فَيْرُوسُ كُوْرُوْنَا او كُوفِيدْ ١٩ | রচনা : করোনা ভাইরাস বা কোভিড-১৯ | Alim Arabic 2nd Paper - আলিম আরবি দ্বিতীয় পত্র | Class Alim (الصف العالم)

∫الانشاء :  فَيْرُوسُ كُوْرُوْنَا او كُوفِيدْ ١٩ |  রচনা : করোনা ভাইরাস বা কোভিড-১৯ | Alim Arabic 2nd Paper - আলিম আরবি দ্বিতীয় পত্র | Class Alim (الصف العالم)
(toc)

  فَيْرُوسُ كُوْرُوْنَا او كُوفِيدْ ١٩

الْمُقَدَّمَةُ :

إِنَّ فَيَرُوسُ كُوْرُوْنَا يُعْتَبَرُ مِنَ الْغَيْرُوسَاتِ الَّتِي تُصِيبُ الْجَهَّازِ التَّنَفْسُ وَإِنَّ جَائِحَةُ فَيْرُوْسَ كَوْرُونَا أَوْ جَائِحَةُ كَوْفِيدُ ١٩ أَصْبَحَتْ جَائِحَةُ عَالَمَةٌ -

 تَعْرِيفُ فَيْرُوسُ كُورُوْنَا وَكُوفِيْدُ ۱۹ :

إِنَّ كَلِمَةً كَوْرُوْنَا مَعْنَاهَا التَّاجُ أَوْ الْهَالَةُ، وَسُمّى الفَيْرُوسُ بِهَذَا الْاِسْمِ بِسَبَبِ النَّواتِ الْمَوْجُودَةُ عَلى . سَطْحِهِ الَّتِي تَشْبَهُ تَاجُ الْك أو الهالة الشمسية.وَأَمَّا كُوفِيْدُ ١٩ فَهُوَ الْمَرَضَ النَّاتِجُ عَنْ فَيْرُوس كورونَا الْمُسْتَجِد فَمَقْطَعْ كُو يُشِيرُ إلى كورُونَا، وَمَقْطَعَ فِي" يُشِيْرَ إلى فَيْرُوس وَمَقْطَع "د" يَعْنِي دَاءً، وَأَمَّا رَقَمُ ١٩ فَيُشِيرُ إِلى عَامٍ ٢٠١٩ -

اكْتِشَافُ فَيْرُوسَ كَوْرُونَا : 

إِنَّ فَيْرُوس كورونَا الْمَسْتَجِدُ ظَهْرَ أَوَّلاً فِى أَوَائِلِ دِيْسَمْبَر، سَنَةَ ۲۰۱۹ بِمَدِينَةِ وُوْهَانَ الصَّيْنِيَّةَ، وَمِنْهَا إلى مُقَاطِعَاتِ الصِّينِ، ثُمَّ إلى سائر أنحاء العالم -

طرق انتشار فَيْرُوسُ كُوْرُونَا :

يَنْتَشِرٌ فَيْرَوْسُ كُورُونَا مِنْ شَخْصٍ إلى أخير عَنْ طَريقِ الرّذاذ الْمُنْطَلِق عِنْدَمَا يَسْعَلُ الْمُصَابَ بالفيروس أو يَعْطِسُ أَوْ يَتَحَدَّثُ، وَيُمْكِنُ أَنْ يَنْتَقِل أَيْضًا إذَا لَمِسَ الشَّخصَ شَيْئًا عَلَيْهِ الْغَيِّرُوسَ ثُمَّ لَمِسَ فَمِهِ أَوْ انْفِهِ أَوْ عَيْنَيْهِ -

أَعْرَاضَ كُوفِيْدَ ١٩ : 

قَدْ يَظْهَرُ أَعْراضُ كَوفِيْدَ ١٩ بَعْدَ يَوْمَيْنِ إلى ١٤ يَوْمًا مِنَ التَّعْرْضِ لَهُ. وَتَتَضَمَّنَ الْأَعْرَاضَ الْأَكْثَرَ شَيُوعَا الْحُمى والسَّعَالِ وَالتَّعب. وَتَشَمَلَ الْأَعْرَاضِ الأَقل شيوعًا فَقْدَانِ حَاسَتِي الذَّوقِ وَالسّم، وألم الحلق وألام العضلات والصداع -

كيفية الوقايةِ :

إِنَّ مَنَظَمَةُ الصِّحَةِ الْعَالَمِيَّةِ أَوْصَتْ بِاتِّباع الاحْتِيَاطَاتِ التَّالِيَةِ لِلوقايةِ مِنْ كُوفِيدِ ١٩:
 ١- المحافظة على مُسَافَةِ كَافِيةٍ بَيْنَ الأَفْرَادِ -
٢ -غَسْلُ الْيَدَيْنِ مِرَاراً بِالْمَاءِ وَالصَّابُيِّنُ لِمُدة ٢٠ ثَانِيَةً عَلى الأقل -
٣ - ارْتِدَاء كَمَامَةُ فِي الأَمَاكِنِ الْعَامَّةِ -
٤ -غَمَّ الْهُم وَالْأَنْفِ بِمَرْفَقِ أَوْ بِمَنْدِيلٍ عِنْدَ السَّعَالِ أَوِ الْعَطَسِ -
 ٥- تَجَنَّبِ لَمْسَ الْعَيْنِ أوِ الْأَنْفِ أَوِ الْقَمِ بِأَيْدِ غَيْرِ مَغْسُولةٍ -

 أَضْرَارُ جَائِحَةٍ كُوفِيْدَ ۱۹ :

سَبَبَتِ الْجَائِحَةُ أَضْرَاراً اِجْتِمَاعِيَةِ وَاقْتِصَادِيَّةِ عَالَمِيَّةٍ بِالغَةٍ، جَعَلَتْ أَضْحُمُ رُكُودِ اِقْتِصَادِي عَالَفِي أَمَا الْمُصَابُونَ بِكَوْفِيدِ ۱۹ فَبَلَغَ عَدَدُهُمْ فِى عَامَيْنِ مِنَ الظَّهُورِ أَكْثَرُ مِنْ ۲۰۰ مِلِيوْنَا، وَأمَا الْمَوْتَى فَبَلَغَ عَدَدُهُمْ أَكْثَرُ مِنْ ٤ مَلَايِيْن -

اَلْخَاتِمَةُ :

عَلَيْنَا الْحَفاظ عَلى النَّظَافَةِ الشَّخصِيَّةِ عُمُومًا، وَاتَّبَاعُ التَّوْصِيَاتِ الْوِقَائِيَّة لِتَجنَّب التَّعَرِّضِ لِلْغَيْرُوسِ المُسَببِ لِكُوفِيدِ ١٩ -


করোনা ভাইরাস বা কোভিড-১৯

উপস্থাপনা :

করোনা ভাইরাস শ্বাসতন্ত্রে সংক্রমণ সৃষ্টিকারী ভাইরাসসমূহের অন্তর্ভুক্ত। করোনা ভাইরাস মহামারি বা কোভিড-১৯ মহামারি একটি বৈশ্বিক মহামারিতে পরিণত হয়েছে।

করোনা ভাইরাস ও কোভিড-১৯-এর পরিচয় : 

করোনা শব্দের অর্থ মুকুট বা আলোক- বেষ্টনী। ভাইরাসের উপরিভাগে রাজার মুকুট অথবা সূর্যের আলোক-বেষ্টনীসদৃশ স্ফীতির কারণে ভাইরাসটিকে এই নামকরণ করা হয়েছে। আর কোভিড-১৯ হলো এমন রোগ, যা নতুন করোনা ভাইরাস থেকে সৃষ্ট। 'কো' অংশটি করোনা বোঝায়, 'ভি' অংশটি ভাইরাস বোঝায় আর 'ড' অংশটি ডিজিজ বা রোগ বোঝায়। আর ১৯ সংখ্যাটি ২০১৯ সাল বোঝায়।

করোনা ভাইরাসের আবিষ্কার: 

নতুন করোনা ভাইরাসটি ২০১৯ সালের ডিসেম্বরের শুরুতে চীনের উহান শহরে প্রথম প্রকাশ পায়। সেখান থেকে চীনের অন্যান্য অঞ্চলে ও পরবর্তীতে বিশ্বের সকল প্রান্তে ছড়িয়ে পড়ে।

করোনা ভাইরাস বিস্তারের পদ্ধতি : 

ভাইরাসে আক্রান্ত ব্যক্তির হাঁচি-কাশি কিংবা কথাবার্তার ফলে নির্গত জলীয় কণার মাধ্যমে করোনা ভাইরাস এক ব্যক্তি থেকে অন্য ব্যক্তির দেহে ছড়িয়ে পড়ে। এটি এভাবেও সংক্রমিত হতে পারে যে, যদি কেউ ভাইরাসযুক্ত কোনো কিছু স্পর্শ করে তারপর সে তার মুখ, নাক বা দু'চোখ স্পর্শ করে।

কোভিড-১৯-এর লক্ষণসমূহ: 

কোভিড-১৯-এর লক্ষণসমূহ সংক্রমিত হওয়ার দুই দিন পর থেকে ১৪ দিন পর্যন্ত প্রকাশ পায়। সর্বাধিক প্রকাশিত লক্ষণসমূহ হলো জ্বর, কাশি ও অবসাদ। আর কম প্রকাশিত লক্ষণগুলোর মধ্যে রয়েছে স্বাদ ও গন্ধের অনুভূতি হারিয়ে ফেলা, গলা ব্যথা, পেশির ব্যথা ও মাথাব্যথা।

প্রতিরোধের পন্থা :

বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থা কোভিড-১৯ প্রতিরোধের জন্য নিম্নোক্ত সতর্কতাসমূহ পালনের নির্দেশনা প্রদান করেছে-
১. লোকজনের মাঝে পর্যাপ্ত দূরত্ব বজায় রাখা।
২. কমপক্ষে ২০ সেকেন্ড সময় নিয়ে সাবান-পানি দিয়ে বারবার দুই হাত ধোয়া।
৩: পাবলিক প্লেসে মাস্ক পরিধান করা।
৪. হাঁচি কিংবা কাশির সময় কনুই বা রুমাল দ্বারা মুখ ও নাক ঢেকে রাখা।
৫. অপরিষ্কার হাত দিয়ে চোখ, নাক বা মুখ স্পর্শ করা থেকে বিরত থাকা।

কোভিড-১৯ মহামারির ক্ষতি: 

মহামারিটি বিপুল পরিমাণে বৈশ্বিক, সামাজিক ও অর্থনৈতিক ক্ষতির কারণ হয়েছে। এটি বিশ্বের সবচেয়ে বড় অর্থনৈতিক মন্দা সৃষ্টি করেছে। আর কোভিড-১৯ প্রকাশের দুই বছরের মধ্যে এতে আক্রান্তের সংখ্যা বিশ কোটির অধিক এবং মৃত্যুবরণকারীদের সংখ্যা ৪০ লক্ষেরও অধিক।

উপসংহার: 

আমাদের কর্তব্য হলো, ব্যক্তিগত পরিচ্ছন্নতার ক্ষেত্রে ব্যাপকভাবে যত্ন নেওয়া এবং কোভিড-১৯ আক্রান্তকারী ভাইরাসের সংস্পর্শ থেকে বিরত থাকতে প্রতিরোধমূলক নির্দেশনাগুলো মেনে চলা।



#buttons=(Accept !) #days=(20)

Our website uses cookies to enhance your experience. Learn More
Accept !