الانشاء : أَنَّ الدِّينَ عِنْدَ اللَّهِ الْإِسْلَام | রচনা : আল্লাহর মনোনীত ধর্ম ইসলাম | Alim Arabic 2nd Paper - আলিম আরবি দ্বিতীয় পত্র | Class Alim (الصف العالم)

(toc)

 أَنَّ الدِّينَ عِنْدَ اللَّهِ الْإِسْلَام 

 التَّقْدِيمُ :

 اَلْحَمْدُ لِلَّهِ الَّذِى اَنْعَمَنَا بِنِعْمَةِ الْاِسْلَامِ وَالصَّلوةُ وَالسَّلَامُ عَلَى النَّبِيِّ الْمُرْسَلِ بِدِيْنِ الْحَقِّ وَعَلَى الِهِ وَاَصْحَابِهِ الَّذِينَ أَقَامُوا الدِّينَ -

معْنَى الدِّيْنِ وَالْإِسْلَامِ :

 الدِينَ فِى اللُّغَةِ : الطَاعَةُ الشَّرْعُ الْجَزَاء. : الْإِسْتِسْلَام وَالْإِسْلَامُ فِى اللُّغَةِ : الاستسلام والخضوع -

 وفي الإضطلاع :

 الإِسْلَامُ هُو الدين والنظامُ الَّذِي أَرْسَلَ اللهُ بِهِ رَسُولَهُ محمدًا لِهدَايَةِ النَّاسِ وَانْقَانِهِمْ مِنَ الضَّلَالَةِ إِلَى الْهَدَايَةِ وَمِنَالظُّلُمَاتِ إِلَى النُّورِ -

 اركان الْإِسْلَامِ :

 أَرْكَانُ الْإِسْلَام خَمْسًا كَمَا قَالَ النَّبِيُّ : بَنِى الْإِسْلَامُ عَلى خَمْسٍ شَهَادَة الله وَ مُحَمَّدًا رَسُولُ اللهِ وَإِقَامِ الصَّلوة وَإِيتَاءِ الزَّكْرة وَصَوْمِ رَمَضَانَ وَالْحَج -

 ضرورة دينِ الْإِسْلَامِ :

 إِنَّ الْإِنْسَانَ يَحْتَاجُ إلَى نِظامٍ كَامِلٍ وَشَامِل لِجَمِيعِ شُدُون الحَيَاةِ وَالْإِسْلَامُ هُوَ الدِّينُ الْكَامِلُ الشَّامِلُ لِجَمِيعِ شُنُونِالدُّنْيَا وَالْآخِرَةِ الَّذِى يُوفِى جَمِيعَ حَوَائِعِ النَّاسِ، لِذلِكَ يَحْتَاجُ النَّاسُإلَى الْإِسْلَامِ كُلَّ حِينٍ -

أفضلية دينِ الْإِسْلَامِ وَاهَيّتُهُ :

 إِنَّ بينَ الْإِسْلَامِ هُوَ أَفْضَلُ الْأَدْيَانِ وَأَعْلَاهَا وَهُوَ الدِّينُ الْوَحِيدُ الْمَقْبُول عِندَ اللهِ تَعَالَى وَالْأَدْيَانُ الْأُخْرَى غَيْرُ مَقْبُولَ عِنْدَ اللهِ قَالَ اللهُ تَعَالَى : وَمَنْ يَبْتَغِ غَيْرَ الْإِسْلَامِ دِينًا فَلَنْ يُقْبَلَ مِنْهُ وَهُوَ فِى الْآخِرَةِ مِنَ الْخَسِرِينَ وَإِنَّ اللَّهَ تَعَالَى جَعَلَ الْإِسْلَامَ دِينًا لَنَا وَنِظَامًا لِحَيَاتِنَا وَرَضِيَ بِهِ حَيْثُ قَالَ : الْيَوْمَ أَكْمَلْتُلَكُمْ بَيْنَكُمْ وَأَتْمَمْتُ عَلَيْكُمْ نِعْمَتِي وَرَضِيتُ لَكُمُ الْإِسْلَامَ دِيْنًا -

 الْإِسْلَامُ دِينُ الْعَدْلِ :

 الْإِسْلَامُ دِيْنُ الْعَدْلِ وَدِينُ الْأَمْنِ وَالسَّلَامِ الَّذِي أَقَامَ العدل والأمن بَيْنَ النَّاسِ فِى الْمُجْتَمَع ، وَبِيْنَ الْمُسَاوَاةِ لَا فَرْقَ فِيهِ بَيْنَ الأمير وَالْمَامُور إِلَّا بِالتَّقْوى. وأيضًا هُوَنُ الْيُسْرِ لا عُسْرَ فِيهِ كَمَاجَاءَ فِي الْآيَةِ : وَمَا جَعَلَ عَلَيْكُمْ فِي الدِّينِ مِنْ حَرَةٍ -

 واجبنا نحوَ الدَيْنِ الْإِسْلَامِي :

 عَلَيْنَا أَنْ نُقِيمَ الذِيْنَ الْإِسْلَامِي فِي حَيَاتِنَا مُجْتَمَعنا وبهذا أمر الله تعالى : أَنْ أَقِيمُوا اللَّيْنَ وَلَاتتفرقوا فيه -

 الْخَائِمَةُ :

 الذِيْنُ الْإِسْلَامِيُّ هُوَ دِينُ مُكَمَّل وَدِيْنُ عَالَمِي فَعَلَيْنَا إِتِّبَاعُهُوَإِقَامَتْهُ فِي الْمُجْتَمَعِ الْإِنْسَانِي -


আল্লাহর মনোনীত ধর্ম ইসলাম

উপস্থাপনা :

সকল প্রশংসা আল্লাহর জন্য, যিনি আমাদেরকে ইসলামের নেয়ামত দান করেছেন। দরূদ ও সালাম বর্ষিত হোক নবী কারীম (স)-এর ওপর, যিনি সত্য দ্বীনসহ প্রেরিত হয়েছেন এবং তাঁর পরিবার ও সাহাবীগণের ওপর যাঁরা দ্বীন প্রতিষ্ঠা করেছেন।

( الْإِسْلَامِ ও الدِّيْنِ) -এর অর্থ :

(الدِّيْنِ) - এর আভিধানিক অর্থ হলো- আনুগত্য, বিধান, প্রতিদান। আর ( الْإِسْلَامِ )-এর আভিধানিক অর্থ হলো, আত্মসমর্পণ করা ও বিনয় প্রকাশ করা। পারিভাষায়- ইসলাম হলো সে দ্বীন ও বিধান, যা দিয়ে আল্লাহ তায়ালা মানুষকে পথভ্রষ্টতা থেকে হেদায়াত এবং অন্ধকার থেকে আলোর পথে নিয়ে আসার জন্য তাঁর রাসূল মুহাম্মদ (স)-কে পাঠিয়েছেন।

ইসলামের স্তম্ভ :

ইসলামের ও ইসলামের স্তম্ভ পাঁচটি। যেমন নবী কারীম (স) বলেন, “ইসলামের ভিত্তি পাঁচটি বিষয়ের ওপর প্রতিষ্ঠিত। এ সাক্ষ্য দেওয়া যে, আল্লাহ ব্যতীত কোনো ইলাহ নেই, মুহাম্মদ (স) আল্লাহ তায়ালার রাসূল, সালাত কায়েম করা, যাকাত আদায় করা, রমযানের রোজা রাখা এবং হজ্জ করা"।

দ্বীন ইসলামের প্রয়োজনীয়তা:

মানুষ জীবনের সার্বিক বিষয়ে একটি পূর্ণাঙ্গ ও সর্বাত্মক জীবনবিধানের মুখাপেক্ষী। ইসলাম হলো দুনিয়া ও আখেরাতের সকল বিষয়ের ব্যাপারে সে সর্বাত্মক পূর্ণাঙ্গ জীবনব্যবস্থা, যা মানুষের সকল প্রয়োজন মেটাতে পারে। এ কারণে মানুষ সবসময় ইসলামের মুখাপেক্ষী।

দ্বীন ইসলামের শ্রেষ্ঠত্ব ও গুরুত্ব:

দ্বীন ইসলাম সর্বশ্রেষ্ঠ ও সর্বোত্তম দ্বীন। এটি আল্লাহর নিকট একমাত্র গ্রহণীয় জীবনব্যবস্থা। অন্য কোনো জীবনব্যবস্থা আল্লাহর নিকট গ্রহণযোগ্য নয়। আল্লাহ তায়ালা ইরশাদ করেন, “আর যে ইসলাম ব্যতীত কোনো কিছুকে জীবনব্যবস্থা হিসেবে অন্বেষণ করবে, তা তার নিকট হতে গ্রহণ করা হবে না। পরকালে সে ক্ষতিগ্রস্তদের অন্তর্ভুক্ত হবে"। আর আল্লাহ তায়ালা ইসলামকে আমাদের দ্বীন ও জীবনবিধান হিসেবে নির্ধারিত করেছেন এবং এটাকে পছন্দ করেছেন। তিনি ইরশাদ করেন, "আজ আমি তোমাদের জন্য তোমাদের দ্বীনকে পরিপূর্ণ করে দিয়েছি এবং তোমাদের প্রতি আমার নেয়ামত পরিপূর্ণ করেছি। আর তোমাদের জন্য ইসলামকে দ্বীন হিসেবে মনোনীত করেছি"।

ইসলাম ইনসাফের দ্বীন:

ইসলাম ইনসাফের দ্বীন এবং শান্তি ও নিরাপত্তার চীন, যা সমাজে মানুষের মাঝে ইনসাফ ও নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠা করেছে। এটি সাম্যের দীন, যাতে আল্লাহ ভীতি ব্যতীত শাসক ও প্রজার মাঝে কোনো পার্থক্য নেই। এটি সহজ না জটিল নয়। যেমন আয়াতে এসেছে, “তিনি দ্বীনের ব্যাপারে তোমাদের অপর কোনো কঠোরতা "আরোপ করেননি"

দ্বীন ইসলামের প্রতি আমাদের কর্তব্য :

আমাদের কর্তব্য হলো আমাদের জীবন ও সমাজে ইসলাম প্রতিষ্ঠা করা। আল্লাহ তায়ালা এ কাজ করার নির্দেশ দিয়েছেন এ মর্মে, "তোমরা গ্রীন কায়েম কর এবং তাতে মতভেদ করো না"।

উপসংহার:

ইসলাম একটি পূর্ণাঙ্গ এ বিশ্বজনীন ইমাদের কর্তব্য হে ইসলামের অনুসরণ করা ও মানবসমাজে তা প্রতিষ্ঠা করা।


#buttons=(Accept !) #days=(20)

Our website uses cookies to enhance your experience. Learn More
Accept !